ইউনিসেফে শুভেচ্ছা দূত হলেন অভিনেত্রী বিদ্যা সিনহা মীম

  গ্রামনগর বার্তা রিপোর্ট

প্রকাশ: ২০ মে ২০২২, ১০:৫২ |  আপডেট  : ২৭ জুন ২০২২, ০৯:৩৯

ঢাকার অভিনয় জগতে নিজ দক্ষতায় আলোকিত বিদ্যা সিনহা সাহা মীম। আর এবার তার মুকুটে নতুন পালক। কারণ সম্প্রতি বাংলাদেশে ইউনিসেফের নতুন শুভেচ্ছা দূত হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বিজয়ী এই অভিনেত্রী।

বৃহস্পতিবার (১৯ মে) রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ে সংস্থাটির সঙ্গে এক চুক্তির মাধ্যমে এ পদে যোগ দেন তিনি। এখন থেকে তিনি নিজেদের জনপ্রিয়তা ও জোরালো কণ্ঠস্বর কাজে লাগিয়ে শিশু অধিকার রক্ষায় কাজ করবেন বলে প্রত্যাশা করে ইউনিসেফ। 

সংস্থাটি জানায়, পেশাগত জীবনে মীম নিজেকে নারীর অধিকারের জন্য একজন অনুপ্রেরণাদায়ী সমর্থক এবং সহিংসতার বিরুদ্ধে শক্তিশালী কণ্ঠস্বর হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন।

বাংলাদেশে ইউনিসেফের জাতীয় শুভেচ্ছা দূত হিসেবে মীম শিশুদের অধিকার সম্পর্কে সচেতনতা বাড়াতে কাজ করবেন, বিশেষ করে যেসব শিশু সবচেয়ে অবহেলিত।

বাংলাদেশে শিশু ও নারীরা যে ধরনের সহিংসতার মুখোমুখি হয় তার বিরুদ্ধে তিনি ইউনিসেফের পক্ষে কথা বলবেন। এই নিয়োগের আগেও মীম করোনা প্রতিরোধে সচেতনতা বাড়াতে ইউনিসেফের সঙ্গে কাজ করেছেন।

তাকে জীবন বাঁচাতে করোনা টিকার গুরুত্বপূর্ণ অবদান ও টিকাদান সেবায় আরও বিনিয়োগের প্রয়োজনীয়তা তুলে ধরতে বৈশ্বিক আহ্বানে কণ্ঠ মেলাতেও দেখা গেছে।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে বিদ্যা সিনহা মীম বলেন, সারাদেশে শিশুদের জন্য, তাদের শিক্ষা, সুস্বাস্থ্য ও উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ নিশ্চিত করতে ইউনিসেফ কাজ করছে। দীর্ঘদিন ধরে শিশুদের জন্য ইউনিসেফের এ কাজে আমি মুগ্ধ। প্রতিটি শিশুর অধিকার প্রতিষ্ঠায় সেই কাজের অংশ হতে পেরে আমি কৃতজ্ঞ। শিশু ও নারীদের অধিকারের জন্য সোচ্চার হওয়া আমাদের প্রত্যেকের দায়িত্ব। আমি সেই দায়িত্ব ইউনিসেফের সঙ্গে একত্রে পালন করতে উন্মুখ।

সারাদেশে ইউনিসেফ শিশুদের জন্য জীবন রক্ষাকারী নানা কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। এর মধ্যে রয়েছে শিশুর স্বাস্থ্য ও সুরক্ষা নিশ্চিত করা; তাদের শিক্ষার অধিকার; শৈশব উপভোগের সুযোগ ও স্বতন্ত্র মানুষ হিসেবে বেড়ে ওঠার সুযোগ প্রতিষ্ঠা করা।
 

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত