গণস্বাস্থ্য মেডিকেলে ১১০ শিক্ষার্থী ভর্তি বহাল, ১০ লাখ জরিমানা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২:০৯ |  আপডেট  : ১৮ জুন ২০২৪, ১৪:৪৪

ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর প্রতিষ্ঠিত গণস্বাস্থ্য মেডিকেল কলেজে ২০২১ শিক্ষাবর্ষে শুধুমাত্র ১১০ জন শিক্ষার্থীর ভর্তির সিদ্ধান্ত বহাল রেখেছেন আপিল বিভাগ। তবে অতিরিক্ত শিক্ষার্থী ভর্তির কারণে প্রতিষ্ঠানটিকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করেছেন আদালত। জরিমানার এই টাকা খুলনা গণস্বাস্থ্য হাসপাতাল ও কিউনি ফাউন্ডেশনকে দিতে বলা হয়েছে। গণস্বাস্থ্য মেডিকেল কলেজ কর্তৃপক্ষকে এই টাকা পরিশোধ করতে বলা হয়েছে।

মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) প্রধান বিচারপতি ওবায়দুল হাসানের নেতৃত্বে ৬ বিচারপতির আপিল বেঞ্চ এ রায় দেন। আদালতে শিক্ষার্থীদের পক্ষে শুনানি করেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী আহসানুল করিম, অ্যাডভোকেট নাহিদ সুলতানা যুথি, অ্যাডভোকেট শাকিলা রওশন।

এর আগে ২০২২ সালের ২৮ জুন ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর প্রতিষ্ঠিত গণস্বাস্থ্য মেডিকেল কলেজ প্রতি শিক্ষাবর্ষে ১১০ জন শিক্ষার্থী ভর্তি করতে পারবে বলে রায় দেন হাইকোর্ট। ৬০ জন শিক্ষার্থীর ভর্তির অনুমতি সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত অবৈধ ঘোষণা করে বিচারপতি কাশেফা হোসেন ও বিচারপতি কাজী জিনাত হকের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রায় দেন।

সেদিন আদালতে রিটের পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার এ কে এম ফকরুল ইসলাম। সঙ্গে অ্যাডভোকেট সাঈদা ইয়াসমিন। রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট সাজ্জাদ হোসেন।

ব্যারিস্টার এ কে এম ফখরুল ইসলাম বলেন, ২০১০ সাল থেকে গণস্বাস্থ্য মেডিকেল কলেজে ১১০ জন করে শিক্ষার্থী ভর্তির অনুমতি ছিল। ২০২১ সালে এসে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধিভুক্ত হওয়ার পর থেকে চিঠি দিয়ে জানালো ৫০ জন শিক্ষার্থী গণস্বাস্থ্য মেডিকেল কলেজে বেশি ভর্তি করা যাবে না। এ সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল করলে তখন মাত্র ১০ জন বাড়িয়ে ৬০ জন ভর্তির অনুমতি দেওয়া হলো।

১১০ জনের জায়গায় ৬০ জন ভর্তি করার অনুমতি সংক্রান্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট করা হয়। রিটের শুনানি নিয়ে ২০২১ সালের ২৩ নভেম্বর আদালত রুল জারি করেছিলেন। আজ রুল যথাযথ ঘোষণা করেছেন হাইকোর্ট। ৬০ জন শিক্ষার্থীর ভর্তির অনুমতি সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত অবৈধ ঘোষণা করা হয়। পরে এই রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হয়। 

 

সা/ই

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত