বাগেরহাটে চাচাতো ভাইয়ের দুই পা ভেঙ্গে দিলেন সাবেক ইউপি সদস্য

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১১ এপ্রিল ২০২১, ১৯:০৩ |  আপডেট  : ১০ জুন ২০২৪, ১৪:৩৮

বাগেরহাটের শরণখোলায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে আপন চাচাতো ভাইয়ের দুই পা ভেঙ্গে দিয়েছেন সাবেক ইউপি সদস্য ফজলুল হক টুকু। শনিবার (১০ এপ্রিল) রাত সাড়ে নয়টার দিকে শরণখোলা উপজেলার তাফালবাড়ি বাজার থেকে বাড়ি ফেরার পথে উত্তর তাফালবাড়ি গ্রামের নুরুল হকের বাড়ির সামনে পৌছালে পূর্ব থেকে ওৎপেতে থাকা ফজলুল হক টুকুসহ কয়েক জন নাজমুল ইসলাম সাগরের উপর হামলা করে। এসময় তারা হাতুরি দিয়ে পিটিয়ে নাজমুল ইসলাম সাগরের দুই হাটুর হাড় গুড়ো করে দেয়। আকুতি মিনতি করেও রক্ষা পাননি সাগর। এসময় ঠেকাতে গেলে জাহান নামের একজনকে পিটিয়ে আহত করে হামলাকারীরা।  পরে আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে স্থানীয়রা।

আহত নাজমুল ইসলাম সাগর শরণখোলা উপজেলার উত্তর তাফালবাড়ি গ্রামের ইউসুফ আলীর ছেলে। হামলাকারী ফজলুল হক টুকু সাউথখালী ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য এবং নাজমুলের চাচাতো ভাই।

আহত নাজমুল ইসলাম সাগরের স্ত্রী রুমা বেগম বলেন, আমার স্বামী নাজমুল ইসলাম সাগর ও সাবেক ইউপি সদস্য ফজলুল হক টুকু আপন চাচাতো ভাই। আমরা একই বাড়িতে পাশাপাশি ঘরে বসবাস করি। জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে এর আগেও চারবার আমার স্বামীকে মারধর করেছেন ফজলুল হক টুকু।কিছুদিন আগে হাত-পা গুড়ো করে দেওয়ার হুমকীও দিয়েছিল। ফজলুল হক টুকুর বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনসহ একাধিক অপরাধে মামলা রয়েছে।

কান্নাজড়িত কন্ঠে তিনি আরও বলেন, আমার স্বামীর দুই পা হাতুরি দিয়ে পিটিয়ে যেভাবে ভেঙ্গে দিয়েছে তা বর্ননাতীত। এই হামলা যেকোন নৃশংসতাকে হার মানায়। বর্তমানে আমার স্বামী খুলনা মেডিকেল কলেজে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। আমি এই ঘটনার সুষ্ঠ বিচার চাই।

শরণখোলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ সাইদুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শণ করেছি। অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত