সমকামী ক্লাব খোলার আবেদন করায় মানসিক হাসপাতালে পাঠানো হল

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশ: ১১ জুন ২০২৪, ১৬:১৬ |  আপডেট  : ২২ জুন ২০২৪, ০০:০১

পাকিস্তানে সমকামী ক্লাব খুলতে আবেদন করা এক ব্যক্তিকে মানসিক হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য টেলিগ্রাম গত রোববার (৯ জুন) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানায়।

যিনি আবেদনটি করেছিলেন তার পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। তিনি পাকিস্তানের অ্যাবোটাবাদের ডেপুটি কমিশনারের কাছে এমন আবেদন করেন।

পাকিস্তানে সমকামিতা অবৈধ। কেউ এই অপরাধে অভিযুক্ত হলে দুই বছর থেকে সর্বোচ্চ যাবজ্জীবন কারাদণ্ডও হতে পারে। যদিও এই আইনের কার্যকারিতা খুব একটা দেখা যায় না। তবে দেশটিতে কেউ প্রকাশ্যে সমকামিতা বিষয়ক কোনো কর্মকাণ্ড করতে পারে না।

সংবাদমাধ্যম দ্য টেলিগ্রাফ জানিয়েছে, ওই ব্যক্তি তার আবেদনে উল্লেখ করেছেন, ক্লাবের ভেতর সমকামীরা জড়ো হবেন। কিন্তু তারা কোনো ধরনের যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হতে পারবেন না। কেউ এ ধরনের আচরণ করতে চাইলে তাকে সতর্কতা করে দেওয়া হবে।

মানসিক হাসপাতালে পাঠানোর আগে ওই ব্যক্তি দ্য টেলিগ্রাফকে বলেন, “আমি মানবাধিকার নিয়ে কথা বলি এবং আমি চাই সবার অধিকার রক্ষা হোক।” তিনি সংবাদমাধ্যমটিকে আরও বলেন, যদি তার আবেদনটি প্রত্যাখ্যান করা হয় তাহলে তিনি আদালতে যাবেন। তার বিশ্বাস ভারতের আদালতের মতো পাকিস্তানের আদালতও সমকামীদের পক্ষে রায় দেবে।

অ্যাবোটাবাদের ডিসি অফিস জানিয়েছে, সমকামী ক্লাব খুলতে চেয়ে কেউ একজন আবেদন করেছেন। তবে তার এ ধরনের প্রচেষ্টা ব্যর্থ হয়েছে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তার আবেদনটি আগেই ফাঁস হয়ে গিয়েছিল। এরপর এ নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার সৃষ্টি হয়।

সূত্র: দ্য টেলিগ্রাফ

সা/ই

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত