দ্বিতীয় পর্বের ইজতেমার দ্বিতীয় দিনের বয়ান চলছে,  প্রাণহানি ৬ জনের

  নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশ: ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১০:৪৭ |  আপডেট  : ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০০:২৪

টঙ্গীর তুরাগ নদীরতীরে তাবলীগ জামাত আয়োজিত বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বের দ্বিতীয় দিনে দেশ-বিদেশের লাখো মুসল্লির উদ্দেশ্যে চলছে  বয়ান। শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) ফজরের নামাজের পর শুরু হয় এই বয়ান।

টঙ্গীর ইজতেমা ময়দান এরইমধ্যে কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে গেছে। রোববার (১১ ফেব্রুয়ারি) হবে আখেরি মোনাজাত। 

শনিবার ফজরের পর বয়ান করেন ভারতের মাওলানা সাঈদ বিন সাদ, বাংলা তরজমা করেন মুফতি ওসামা ইসলাম। সকাল সাড়ে ১০টায় তালিমে হালকা মোয়াল্লেমদের সঙ্গে কথা বলবেন ভারতের মাওলানা আব্দুল আজিম। জোহরের নামাজের পর বয়ান করবেন ভারতের মাওলানা শরিফ। বাংলা তরজমা করবেন মাওলানা মাহমুদুল্লাহ।

আসরের নামাজের পর বয়ান করবেন পাকিস্তানের মাওলানা ওসমান। বাংলা তরজমা করবেন মাওলানা আজিম উদ্দিন। বয়ানের পর যৌতুকবিহীন বিবাহ পড়ানো হবে।

মাগরিবের নামাজের পর বয়ান করবেন ভারতের মুফতি ইয়াকুব। বাংলা তরজমা করবেন মাওলানা মনির বিন ইউসুফ।

এছাড়া রোববার ফজরের পর বয়ান করবেন ভারতের মুফতি মাকসুদ। বাংলা তরজমা করবেন মাওলানা আব্দুল্লাহ। বয়ানের পরই হেদায়েতের কথা ও দোয়া পরিচালনা করবেন ভারতের মাওলানা ইউসুফ বিন সাদ। বয়ান বাংলায় তরজমা করবেন মাওলানা মনির বিন ইউসুফ।

রোববার সকাল দশটা থেকে সাড়ে দশটার মধ্যে আখেরি মোনাজাত অনুষ্ঠিত হতে পারে বলে জানিয়েছেন বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বের মিডিয়া সমন্বয়কারী মোহাম্মদ সায়েম। 

দিল্লির নিজাম উদ্দিন মারকাজের মাওলানা সাদ আহমদ কান্ধলভির অনুসারীরা অংশগ্রহণ করছেন এ পর্বের ইজতেমায়। এটি ৫৭তম বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব। এ পর্বে শুক্রবার রাত ৮টা পর্যন্ত ৬ মুসল্লির মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ইজতেমা ময়দানে ৫ জন এবং ময়দানে আসার পথে  আরও এক মুসল্লি মারা যান বলে জানা গেছে।

জানা যায় শুক্রবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে ময়দানে মারা যান জালাল মন্ডল (৬০) নামের এক মুসল্লি। 

ময়দানে মারা যাওয়া আরও ৪ মুসল্লি হলেন, জামালপুর জেলার ইসলামপুর থানার গোয়ালেরচর গ্রামের ছাবির উদ্দিনের ছেলে নবীর উদ্দিন (৬০), শেরপুর জেলা সদরের মৃত মহেজ উদ্দিনের ছেলে আবুল কালাম (৬৫), নেত্রকোনা জেলার কেন্দুয়া থানার কুতুবপুর গ্রামের মৃত সুলতান উদ্দিনের ছেলে আব্দুল হেলিম মিয়া (৬২) ও দিনাজপুর জেলার নবাবগঞ্জ থানার শেরনগর গ্রামের মৃত ইউসুফ উদ্দিনের ছেলে জহির উদ্দিন (৭০)।

বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বের মিডিয়া সমন্বয়কারী মো. সায়েম ৫ জনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এদিকে, বিশ্ব ইজতেমায় আসার পথে আব্দুল্লাহপুর মাছ বাজার এলাকায় বাসের ধাক্কায় লক্ষ্মীপুরের রামগতি উপজেলার বাসিন্দা আবুল কাসেম (৬৫) নামে এক মুসল্লি মারা গেছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের পরিদর্শক বাচ্চু মিয়া।
   
প্রসঙ্গত, ১১ ফেব্রুয়ারি রোববার আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে ৫৭তম বিশ্ব ইজতেমা।

 

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত