বিদেশে কোন বিক্ষোভ নয়, কুয়েত ফেরত পাঠাবে প্রবাসীদের!

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১২ জুন ২০২২, ২০:৫২ |  আপডেট  : ২৯ জুন ২০২২, ০৮:৫৩

মহানবী (সা.)-কে নিয়ে কটূক্তির প্রতিবাদে কুয়েতের ফাহাহিল এলাকায় বিক্ষোভে অংশ নেওয়া প্রবাসীদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে দেশটির সরকার। শুক্রবার (১০ জুন) জুমার নামাজের পর বিক্ষোভে অংশ নেওয়া প্রবাসীদের গ্রেফতারের জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়েছে এবং তাদেরকে নিজ নিজ দেশে ফেরত পাঠানো হবে। সূত্রের বরাতে এখবর জানিয়েছে আরব টাইমস।

সূত্র জানায়, বিক্ষোভে অংশ নেওয়া প্রবাসীরা কুয়েতের আইন ও বিধি ভঙ্গ করেছেন। দেশটির আইন অনুসারে, প্রবাসীরা কুয়েতে কোনও ধরনের অবস্থান বা বিক্ষোভ কর্মসূচি আয়োজন করতে পারেন না। সব প্রবাসীদের কোনও ধরনের বিক্ষোভে অংশগ্রহণ না করার কুয়েতি আইন অবশ্যই মেনে চলতে হবে।

খবরে আরও বলা হয়েছে, বিক্ষোভে অংশ নেওয়াদের গ্রেফতার এবং নিজ নিজ দেশে ফেরত পাঠানোর কাজ শুরু করেছেন গোয়েন্দারা। তাদের ভিসা বাতিল করা হবে। এছাড়া পুনরায় তাদের কুয়েত প্রবেশে আজীবন নিষেধাজ্ঞা জারি করা হবে।

শুক্রবার (১০ জুন) কুয়েত সিটির ফাহাহিল এলাকায় শুক্রবার প্রবাসী মুসলিমরা মহানবী (সা.)-কে নিয়ে ভারতের ক্ষমতাসীন বিজেপি’র মুখপাত্র নুপুর শর্মার অবমাননাকর মন্তব্যের প্রতিবাদে বিক্ষোভ করেন। তারা বিক্ষোভে নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে এবং মহানবী (সা.)-এর প্রতি সমর্থন জানিয়ে স্লোগান দেন।

এসব প্রবাসী মুসলিমদের বেশিরভাগ এশিয়ার বিভিন্ন দেশের নাগরিক। বিক্ষোভের একটি ভিডিওতে ৪৫-৫০ জন মানুষকে ‘আল্লাহু আকবার’, ‘লা ইলাহা ইল্লালাহ’ স্লোগান দিতে দেখা গেছে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে।

পরে বিক্ষোভস্থলথেকে প্রতিবাদকারীদের সরিয়ে দেওয়া হয়। দাঙ্গা পোশাক পরা বিপুল সংখ্যক পুলিশ সেখানে হাজির হয় এবং বিক্ষোভকারীদের ট্রাকে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়।

বিক্ষোভে অংশ নেওয়া কুয়েতি নাগরিকদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত পদক্ষেপ নেবে সরকার।

নুপুর শর্মার মন্তব্যের পর কুয়েকত সরকার এক বিবৃতিতে নিন্দা জানিয়েছে। একই সঙ্গে সরকার ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে তলব করে এবং ভারত সরকারের কাছ থেকে ক্ষমা চাওয়ার দাবি জানায়।

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত