36 C
Dhaka
Monday, August 3, 2020
No menu items!
More

    আতঙ্ক নয়, সতর্কতা জরুরি

    বিশ্বব্যাপী আতঙ্ক সৃষ্টিকারী করোনাভাইরাস এখন বাংলাদেশে। ইতোমধ্যেই এ মরণঘাতী ভাইরাসে আক্রান্ত ১৬ জনের সন্ধান পাওয়া গেছে। তাদের মধ্যে এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন তিনজন। বাকিরা এখনও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। দেশে যাতে এ ভাইরাস মহামারী আকারে ছড়িয়ে পড়তে না পারে, সেজন্য সরকার নানামুখী পদক্ষেপ নিয়েছে। গণমাধ্যমে গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ-প্রচারের মাধ্যমে রোগটি সম্পর্কে জনসাধারণকে অবগত করা হচ্ছে। সে সাথে এর আক্রমণ থেকে নিজেকে রক্ষার জন্য প্রয়োজনীয় সতর্কতা অবলম্বনেরও দিকনির্দেশনা দেয়া হচ্ছে। তবে, দুঃখজনক হলেও সত্যি যে, সরকারের নিদের্শনা সত্ত্বেও নাগরিকদের মধ্যে সচেতনতার অভাব প্রকটভাবে পরিলক্ষিত হচ্ছে। বিশেষ করে বিদেশ প্রত্যাগত ব্যক্তিদের হোম কোয়ারাইন্টেনে থাকার যে সরকারি নির্দেশনা রয়েছে, তা লঙ্ঘন করে চলেছেন অনেকেই। ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ায় এমন ব্যক্তিদের ছবিসহ প্রতিবেদন প্রচারিত হচ্ছে প্রতিদিনই। একটি বিষয় লক্ষণীয় যে, বিদেশ প্রত্যাগত ব্যক্তি এবং তাদের স্বজনরা ভয়ঙ্কর এ ভাইরাসের ভয়াবহতা সম্বন্ধে চরম উদাসীনতা প্রদর্শন করে চলেছেন। তারা নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে যত্রতত্র ঘোরাঘুরি করছেন, সবার সাথে অবাধে মেলামেশা করছেন। তারা এটা ভেবে দেখছেন না যে, এর মধ্য দিয়ে তারা নিজেদের পাশাপাশি আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধব, পাড়া-প্রতিবেশীর স্বাস্থ্যকেও ঝুঁকির মুখে ঠেলে দিচ্ছেন। হোম কোয়ারাইন্টেনের নির্দেশ অমান্য করায় দেশের বিভিন্ন স্থানে বেশ কয়েকজনকে জরিমানার খবরও পাওয়া গেছে। সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় হলো, নিজেদের স্বাস্থ্য ও জীবনকে নিরাপদ রাখার জন্য অবশ্য পালনীয় বিষয়কে কেউ কেউ অবজ্ঞা করতে দ্বিধা করছেন না। এ প্রবণতা যে শুভ নয় তা বলাই বাহুল্য।

    এদিকে করোনাভাইরাসের প্রকোপ আরো বাড়তে পারে এবং সে কারণে ঘর থেকে বের হওয়া বন্ধ হয়ে যেতে পারে- এ আশঙ্কায় এক শ্রেণির মানুষ নিজেদের ঘরে নিত্য পণ্যের মজুদ গড়ে তোলার অনৈতিক প্রতিযোগিতায় লিপ্ত হতে শুরু করেছে। গণমাধ্যমের সংবাদে সে প্রতিযোগিতার সচিত্র বিবরণ তুলে ধরা হয়েছে। এ সুযোগে এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী পণ্যের কৃত্রিম সঙ্কট সৃষ্টি করে অবৈধ মুনাফা লোটার পাঁয়তারা করছে। অবশ্য এ অশুভ তৎপরতা রোধে দেশের বিভিন্ন এলাকায় সরকারি প্রশাসনের প্রতিরোধমূলক তৎপরতারও খবর পাওয়া গেছে। তারা প্রয়োজনের অতিরিক্ত পণ্য ক্রয়ে জনগণকে নিরুৎসাহিত করছেন এবং পরিস্থিতি সম্বন্ধে জনগণকে সতর্ক করে দিচ্ছেন।

    এটা অস্বীকার করা যাবে না যে, ইতোমধ্যে যেসব দেশ করোনায় আক্রান্ত হয়েছে, সেগুলোর মধ্যে চিকিৎসা ক্ষেত্রে আমরা নিতান্তই দুর্বল। আমাদের চিকিৎসা ব্যবস্থা ততটা উন্নত নয়। করোনার মতো ভয়ঙ্কর ভাইরাসের সংক্রমণ যদি ব্যাপক আকার ধারণ করে, তাহলে পরিস্থিতি সামাল দেয়া অসম্ভব হয়ে পড়তে পারে। করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় হাসপাতাল না থাকা আমাদের জন্য শঙ্কার বিষয় বৈ কি! তদুপরি এ ভাইরাস শনাক্ত করার সরঞ্জামেরও (কিট) অভাব রয়েছে। যদিও চীন বলেছে তারা এ কিট পাঠাবে। তবে, আশার কথা হলো, আমাদের দেশীয় প্রতিষ্ঠান গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র করোনা শনাক্তকরণের কিট উদ্ভাবন করেছে। ১৯ মার্চ তা সরকারের স্বাস্থ্য বিভাগ কর্তৃক অনুমোদন পেয়েছে। দ্রুত এ কিট সরবরাহ করা হলে করোনা শনাক্ত করার সমস্যা নিরসন সম্ভব হবে।

    আরেকটি বিষয় সচেতন নাগরিকদের বিস্মিত না করে পারেনি। এ জতীয় সঙ্কটের সময়েও রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে বিভেদ লক্ষ্য করা যাচ্ছে। মাঠের প্রধান বিরোধী দল বিএনপি করোনা মোকাবেলায় সরকারের ব্যর্থতা খুঁজে বেড়াচ্ছে। এ ঘোরতর দুর্দিনে বিবাদ-বিসম্বাদ বাদ দিয়ে সঙ্কট মোকবেলায় সবার ঐক্যবদ্ধ হওয়ার কথা যেন তারা বিস্মৃত হয়েছেন। আমরা মনে করি রাজনৈতিক দলগুলোর বোধোদয় হওয়া উচিত। রোগ কারো রাজনৈতিক পরিচয়কে বিবেচনায় নেবে না। আমাদের দায়িত্ব ও কর্তব্য হলো, দুর্যোগ মোকাবেলায় প্রয়োজনীয় ভূমিকা রাখা। সরকারের সমালোচনায় নিজেদের দায়িত্ব সীমাবদ্ধ না রেখে কর্মী বাহিনীকে কাজে লাগিয়ে এ সঙ্কট প্রতিহত করতে মনোনিবেশ করা উচিত। স্মরণ রাখতে হবে, জাতীয় দুর্যোগ বা সঙ্কটে কে কোন ভূমিকা পালন করছে, ভবিষ্যতে জনগণ তা মনে রাখবে।

    আমরা আশা করছি, জনগণের স্বাস্থ্য ও জীবনের সুরক্ষার জন্য সরকারের পাশাপাশি সব রাজনৈতিক দল ইতিবাচক মনোভাব নিয়ে এগিয়ে আসবে। সবার আগে জনগণের নিরাপত্তা- এ কথাটি মাথায় রেখে তারা কাজ করবেন। একই সঙ্গে এ ক্ষেত্রে দেশবাসীর দায়িত্বশীল ভূমিকাও অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। কোনো রকম গুজব কিংবা আতঙ্ক ছড়ানো নয়, করোনা মোকাবেলায় সবাইকে সতর্ক করাই হবে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কাজ।

    সর্বশেষ

    লৌহজংয়ের কনকসারে ত্রান বিতরণ করলেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব তোফাজ্জল হোসেন মিয়া

    নিউজ ডেস্ক: সোমবার দুপুরে মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার কনকসার ইউনিয়নস্থ আশ্রয়কেন্দ্র "কনকসার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়'' পরিদর্শন ও ত্রান বিতরন করেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব...

    শ্রীনগরে নৌভ্রমনে গিয়ে মদপানে ১৪ বছরের কিশোরের মৃত্যু

    মো:নজরুল ইসলাম ,শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি: শ্রীনগরে নৌভ্রমনে গিয়ে মদ পান করে ১৪ বছরের এক কিশোরের মৃত্যু হয়েছে। গত ২ আগস্ট রোববার সন্ধ্যা...

    করোনাভাইরাসকে উপেক্ষা করে প্রখ্যাত আলেম মুর্শিদুলের জানাজায় মানুষের ঢল

    নিউজ ডেস্ক: করোনাভাইরাসকে উপেক্ষা করে প্রখ্যাত আলেমে দ্বীন ও কক্সবাজারের রামুর অফিসেরচর ইসলামিয়া কওমিয়া কাছেমুল উলুম মাদরাসার মুহতামিম মাওলানা মুফতি মুর্শিদুল আলম...

    শেখ হাসিনা প্রমাণ করেছেন সঠিক নেতৃত্ব দিতে পারলে দুর্যোগ মোকাবেলা সম্ভব : তথ্যমন্ত্রী

    নিউজ ডেস্ক: তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, আমাদের দেশের বিরোধী দল ঘরের মধ্যে বসে অনলাইনে সংযুক্ত হয়ে টেলিভিশনে উঁকি দিয়ে কথা বলে,...

    শাজাহানপুরে সিদ্দিক হত্যা মামলার আসামিদের ৪ মাসেও গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ

    সজিবুল আলম সজিব শাজাহানপুর(বগুড়া)প্রতিনিধি: বগুড়ার শাজাহানপুরে দীর্ঘ ৪ মাসেও গ্রেফতার হয়নি বিদেশ ফেরত যুবক আবু বক্কর সিদ্দিক হত্যা মামলার প্রধান আসামি সন্ত্রাসী...